চুনারুঘাটে শিক্ষাসহ সকল সমস্যার সমাধান হবে- উপজেলা চেয়ারম্যান

20-09-2015চুনারুঘাট (হবিগঞ্জ) প্রতিনিধি ॥ গতকাল রবিবার সকালে চুনারুঘাট উপজেলার একমাত্র স্বতন্ত্র নারী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান চুনারুঘাট পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ আবু তাহের কে সংবর্ধনা প্রদান করা হয় এবং চুনারুঘাটের শিক্ষা বিস্তারের ক্ষেত্রে তার অব্যাহত অবদানের কথা তুলে ধরে তাকে অভিনন্দিত করা হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন ৩নং দেওরগাছ ইউ/পি চেয়ারম্যান ও অত্র স্কুলের সভাপতি শামছুন নাহার। উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মোঃ শামছুল হক, অত্র স্কুলের সাবেক সভাপতি ও বর্তমান সদস্য আব্দুর রহমান, শিক্ষানুরাগী সদস্য প্রণয় পাল, প্রধান শিক্ষক সত্যেন্দ্র চন্দ্র দেব, সহকারী প্রধান শিক্ষক সুরঞ্জন চন্দ্র ধর, নন্দিতা রায়, রাধিকা রঞ্জন দাস, নিলু রানী দাস, শেখ জামাল আহমদ, আব্দুজ জাহির, সাইফুল ইসলাম, মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান (পাপন), আব্দুল্লাহ আল-মামুন, রাজিব চন্দ্র রায়, মোঃ মোক্তার হোসেন। শিক্ষক শেখ জামাল আহমদ এর পরিচালিত উক্ত অনুষ্ঠানে শ্রদ্ধাঞ্জলি পাঠ করে অষ্টম শ্রেণীর ছাত্রী নন্দিতা দেব মৌ, প্রজেক্টর প্রেজেন্টেশনের মাধ্যমে স্কুলের যাবতীয় কার্যক্রম ও অগ্রতির চিত্র তুলে ধরেন খন্ডকালীন শিক্ষক ফখরুদ্দীন আবদাল। প্রধান শিক্ষক ও সহকারী প্রধান শিক্ষক স্কুলের সমস্যা ও সম্ভাবনার কথা তুলে ধরে বর্তমানে স্কুলটি জাতীয় করণের প্রয়োজনীয়তার কথা ব্যক্ত করেন এবং উপজেলা চেয়ারম্যান ও অবিভাবক প্রতিনিধি সকল সদস্যদের সর্বাত্বক সহযোগিতা ও হস্তক্ষেপ কামনা করেন। প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, “নারী শিক্ষা ক্ষেত্রে বর্তমান সরকার অধিক গুরুত্ব দিচ্ছে, আমরাও এতে গুরুত্ব দিয়ে এম.পি. মহোদয়কে নিয়ে চুনারুঘাট পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়কে সরকারী করণের সকল প্রচেষ্টা চালিয়ে যাব।” তিনি স্কুলের ভবন নির্মাণ, অঢিটরিয়াম, বাগান ও শিক্ষা সম্প্রসারণ সহ সকল কাজে সর্বোচ্চ সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে বন্ধুরমত পাশে থাকবেন বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। প্রধান অতিথি আরো বলেন যে, এ পর্যন্ত২৬ লক্ষ টাকা চুনারুঘাটের বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে প্রদান করা হয়েছে, আগামী বছর ৫০ লক্ষ টাকা এখাতে প্রদান করা হবে। তিনি বলেন “আমি চুনারুঘাট সরকারী কলেজে অনার্স কোর্স চালু, ফায়ার সার্ভিস স্টেশন, চুনারুঘাট সদর হাসপাতালকে ৫০ শয্যায় উন্নীত করণে জনবল নিয়োগ ও উদ্ধোধনের জন্য সংশ্লীষ্ট মন্ত্রী ও সচিবদের সাথে জোর তৎপরতা অব্যাহত রেখেছি। ” তিনি আরো বলেন, “ইকোনমিক জোন ও বাল্লা স্থলবন্দরের মাধ্যমে চুনারুঘাট বাসীর অপার সম্ভাবনার দুয়ার খুলে যাচ্ছে শীঘ্রই।”

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close