টিকেট কেটেও পুলিশী হামলার শিকার সিলেটের ক্রীড়া প্রেমীরা !

Sylhet Stadium Brutal Policeসুরমা টাইমস ডেস্কঃ সিলেটে অনুষ্টিত বাংলাদেশ বনাম ভারতের মধ্যকার ফুটবল ফাইনাল খেলা টিকেট কেটেও দেখতে পারেননি সিলেটের প্রায় দেড় হাজার ক্রীড়া প্রেমীরা। মঙ্গলবার দুপুর থেকেই খেলা দেখতে সিলেটের প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে আসতে শুরু করেন দর্শকরা।
খেলা শুরু হওয়ার পূর্বেই পুরো স্টেডিয়াম দর্শকে পরিপূর্ণ হয়ে যায়। সোমবার অনেকেই স্টেডিয়াম থেকে অগ্রিম ভারত-বাংলাদেশের ফাইনাল খেলা দেখার জন্য টিকেট নেন। মঙ্গলবার বিকেলে সেই টিকেট নিয়ে খেলা দেখতে গেলে বাধে বিপত্তি। পুলিশী হামলার শিকার হতে হয় মহিলা,শিশুসহ শতাধিক ক্রীড়া প্রেমীদের। অনেকেই পুলিশী হামলা থেকে বাঁচতে গিয়ে দৌড় দিলে পড়ে যেতে দেখা যায়।
এসময় অনেকের মোবাইল,মানিব্যাগসহ বিভিন্ন ধরনের মূল্যবান সামগ্রী খোয়া যায়। সোমবার টিকেট নিয়ে মঙ্গলবার ফাইনাল খেলা দেখতে যান সিলেটের এমসি কলেজের শিক্ষার্থী আরিফ হোসেন। তিনি জানান, গেইটে দীর্ঘ সময় অপেক্ষার পর হঠাৎ করেই পুলিশ এলোপাতাড়ি লাঠি দিয়ে পেটানো শুরু করে। এসময় আত্মরক্ষার্থে দৌড় দিলে পড়ে গেলে আমার ব্যবহৃত মোবাইল ফোনটি হারিয়ে যায়।
এমনকি সেসময় পুলিশী ধাওয়া খেয়ে আমার উপর প্রায় ৩০-৩৫জন লোক পড়ে যায়। পরে অন্যদের সহায়তায় আমি স্টেডিয়ামের বাহিরে আসি। শুধু আরিফ নয় খোঁজ নিয়ে জানা যায় খেলা দেখতে গিয়ে মহিলাসহ প্রায় ৪০-৫০জন আহত হয়েছেন। আহত অবস্থায় স্টেডিয়াম এলাকায় অনেকেই প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে খেলা না দেখে বাড়িতে ফিরে যান।
খেলা না দেখতে পেয়ে ক্রীড়া প্রেমীরা অভিযোগ করেন- খেলার আয়োজক কমিটি নির্ধারিত টিকেটের চেয়ে ব্ল্যাকে ফাইনাল খেলার টিকেট বিক্রি করেছেন। টিকেট অনুযায়ি স্টেডিয়ামের ভেতরে নির্ধারিত জায়গা থাকলেও ব্ল্যাকে টিকেট বিক্রি করার কারণে দর্শকে আগ থেকেই গ্যালারি ভরে যায়।
এমনকি টিকেট নিয়েও ফাইনাল খেলা দেখতে না পারাসহ পুলিশী হামলার জন্য আয়োজক কমিটির গাফিলতি আর উদাসিনাতাকেই দায়ি করেন। ক্রীড়া প্রেমী বটেশ্বর এলাকার বাসিন্দা ফজল বলেন, খেলার টিকেট নিয়েও খেলা দেখতে পারিনি। বরং টিকেট কিনে পুলিশী ধাওয়া খেয়েছি।
জানা যায়, খেলা শুরু হয়েছে বিকেল ৫টায়। অথচ দুপুর থেকেই পুরো সিলেট নগরে জ্যাম। সকলের গন্তব্য রিকাবীবাজারস্থ সিলেট স্টেডিয়াম। রিকশা,গাড়িতে করে, পায়ে হেঁটে, দলবেঁধে, পরিবার নিয়ে স্টেডিয়ামের উদ্দেশ্যে ছুটছে মানুষ। আজ যেনো সব পথ গিয়ে মিলেছে স্টেডিয়ামে। স্টেডিয়ামের সবগুলো প্রবেশপথেই ছিলো দীর্ঘ লাইন। যেনো আজ এক উৎসবের দিন।
খেলা শেষে বাংলাদেশের বিজয় উৎসবও পালন করতে চান এই দর্শকরা। আয়োজকরা জানিয়েছেন, আজকের ম্যাচের সব টিকিট বিক্রি হয়ে গেছে। এক কথায় সিলেটের সব পথ গিয়ে মিলেছিল জেলা স্টেডিয়ামে।

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close