শহরের পরিচ্ছন্নতা রক্ষায় ব্যতিক্রমী উদ্যোগ

22সুনামগঞ্জ: রাজনৈতিক উত্তাপের জন্য পুরো দেশ যখন একদিকে, ঠিক তখনই পুরোপুরি ভিন্নস্রোতে বইছে সুনামগঞ্জের হাওয়া- এই কথা প্রমাণ করে দিল শহরে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা রক্ষায় ব্যতিক্রমী এক অভিযান। মঙ্গলবার সকাল থেকে শুরু হয় এই পরিচ্ছন্নতা অভিযান। উদ্যোক্তা একদল তরুণ, যারা ‘পরিচ্ছন্ন সুনামগঞ্জ চাই’ নামে এক আন্দোলন গড়ার জন্য কাজ করছেন। অভিযানে সহযোগিতা করছে সুনামগঞ্জ পৌরসভা।

সকাল সাড়ে ৭টায় শহরের পুরাতন কোর্ট জামে মসজিদ এলাকায় পরিচ্ছন্নতা অভিযান চালান পৌরসভার পরিচ্ছন্নতাকর্মীরা। সেখানে যত্রতত্র পড়ে থাকা ময়লা-আবর্জনা, এমনকি দীর্ঘদিনের জমে থাকা কাঁদামাটিও পরিষ্কার করা হয়।
পরে, বেলা সাড়ে ১১টায় শুরু হয় দ্বিতীয় দফা অভিযান। শহরের উকিলপাড়া পয়েন্ট, আলীমাবাগ, কাজীর পয়েন্ট, বিহারী পয়েন্ট, হোসেন বখত চত্বর ঘুরে ঘুরে চলে 11পরিচ্ছন্নতা অভিযান। অভিযানের নেতৃত্বে ছিলেন সুনামগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আয়ূব বখত জগলুল, পৌরসভার নির্বাহী প্রকৌশলী মীর মোশাররফ হোসেন এবং অভিযানের অন্যতম উদ্যোক্তা সৈয়দ তাওসিফ মোনাওয়ার।
আয়ূব বখত জগলুল বলেন, ‘সুনামগঞ্জকে একটি পরিচ্ছন্ন শহর হিসেবে গড়ে তোলতে আমাদের সবাইকে মিলেমিশে কাজ করতে হবে। একদল তরুণ-তরুণী এমন কাজে এগিয়ে এসেছে দেখে আমি খুবই আনন্দিত। এধরনের কার্যক্রম আমরা চালিয়ে যাব।’
অভিযানে অন্যান্যের মধ্যে অংশ নেন, উদ্যোক্তা আল-মামুন, সোহাগ ইসলাম, বজলুর রহমান, সাব্বির হোসেনসহ পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ।
অভিযান চলাকালে মানুষের মধ্যে সচেতনতা তৈরির জন্য বিতরণ করা হয় লিফলেট। শহরের পরিচ্ছন্নতা রক্ষায় প্রাঞ্জল ভাষায় বিভিন্ন নির্দেশনা লেখা হয়েছে লিফলেটগুলোতে।
পরিচ্ছন্নতা অভিযান একটানা দুপুর ৩টা পর্যন্ত চলে। পরে অংশগ্রহণকারীদের সবাই শহরকে পরিচ্ছন্ন রাখার শপথ নেন।
উল্লেখ্য, ‘আসুন সুনামগঞ্জকে পরিষ্কার করি, নতুন বছরের উপহার হোক পরিচ্ছন্ন শহর’- এ শ্লোগানকে সামনে রেখে গত ৩১ ডিসেম্বর থেকে ব্যতিক্রমী এ কার্যক্রম শুরু হয়।

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close