জকিগঞ্জ পৌরসভার উপনির্বাচনের তফসিল আজ : তৎপর সম্ভাব্য মেয়র প্রার্থীরা

Zakigonj Press Clubজকিগঞ্জ প্রতিনিধিঃ জকিগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আনোয়ার হোসেনের মৃত্যুর পর মেয়র পদটি শুন্য ঘোষনার প্রায় ২ মাস পর গতকাল বৃহস্পতিবার নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব মোঃ ফরহাদ হোসেন স্বাক্ষরিত এক পত্রের মাধ্যমে স্থানীয় সরকার (পৌরসভা) নির্বাচন বিধিমালা, ২০১০ এর বিধি ১০(৩) অনুসরনপূর্বক ৩১ জানুয়ারী ২০১৩ সালের চূড়ান্তভাবে প্রকাশিত ও হালনাগাদকৃত ভোটার তালিকায় আগামী ১৮ অক্টোবর তারিখে জকিগঞ্জ পৌরসভার উপনির্বাচনের ভোট গ্রহনের জন্য জকিগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও রিটার্নিং অফিসারকে অনুমতি প্রদান করেছেন। জকিগঞ্জ উপজেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানাগেছে আজ শুক্রবার জকিগঞ্জ পৌরসভার উপনির্বাচনের তফসিল ঘোষনা করা হতে পারে। এদিকে উপনির্বাচনের তফসিল ঘোষনা হবে এমন সংবাদ শুনার পর থেকে মেয়র পদে নির্বাচন করার লক্ষে মাঠে বেশ তৎপর রয়েছেন নতুন, পুরাতন সম্ভাব্য মেয়র প্রার্থীরা। পৌর এলাকার বিভিন্ন পাড়ায় মহল্লায় চলছে গোপন বৈঠক। ধর্মীয়, সামাজিক, সাংস্কৃতিক অনুষ্টানে অংশ গ্রহন করে প্রার্থীরা তাদের প্রার্থীতা ঘোষনা করছেন। চষে বেড়াচ্ছেন সাধারন ভোটারদের দ্বারে দ্বারে। উপনির্বাচনকে কেন্দ্র করে চা হোটেলে বইছে আলোচনার ঝড়। গত ঈদ-উল ফিতর উপলক্ষে সম্ভাব্য মেয়র প্রার্থীরা পৌর নাগরিকদের শুভেচ্ছা, অভিনন্দন জানিয়ে বিলর্বোড, ঈদ কার্ড বিলি করতে দেখা গেছে। পৌর এলাকার বিভিন্ন পয়েন্টে শুভেচ্ছা জানিয়ে ব্যনার টানিয়েছেন কয়েক প্রার্থী। উপনির্বাচনে অংশ নিতে এখন পর্যন্ত প্রার্থীতা ঘোষনা করেছেন জকিগঞ্জ পৌরসভার প্যানেল মেয়র ও পৌর জাপার আহবায়ক আব্দুল মালেক ফারুক, জেলা যুবলীগ নেতা ও উপজেলা আওয়ামীলীগ যুগ্ম আহবায়ক ফারুক আহমদ, উপজেলা আওয়ামীলীগ যুগ্ম আহবায়ক এমএ জি বাবর, মারুফ বখতিয়ার খুররম, সাবেক মেয়র প্রার্থী পৌর বিএনপির নেতা অধ্যাপক বদরুল হক বাদল, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার হাজী খলিল উদ্দিন, পৌর আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও প্রবাসী আওয়ামীলীগ নেতা ময়নুল হক, উপজেলা যুবলীগ ভারপ্রাপ্ত আহবায়ক শহীদ আহমদ, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল খালিক, জকিগঞ্জ নাগরিক ঐক্য পরিষদের সভাপতি সাংবাদিক শ্রীকান্ত পাল, পৌর আনজুমানে আল ইসলার সভাপতি কাজী হিফজুর রহমান, সোনার বাংলা সমবায় সমিতির এমডি জাফরুল ইসলাম, প্রয়াত মেয়র পুত্র আব্দুল আহাদ, ব্যবসায়ী মুজম্মিল আলী আদই, আব্দুর রহমান লুকু, জামায়াত নেতা ইমরান আহমদ। তবে শেষ পর্যন্ত তফসিল ঘোষনার পর কে থাকবেন! কে থাকবেন না তা বুজতে বাকী থাকবেনা ভোটারদের।
উল্লেখ্য, ২০১১ সালের ১৫ ফ্রেবুয়ারী হতে সদ্য প্রয়াত মেয়র আনোয়ার হোসেনের মেয়াদকাল শুরু হয়। এই মেয়াদকাল অনুযায়ী ২০১৬ সালের ১৬ ফ্রেবুয়ারী তার মেয়াদকাল ৫ বছর পূর্ণ হত কিন্তু গত ২০ জুলাই পৌরসভার মেয়র আনোয়ার হোসেনের মৃত্যুর কারনে জকিগঞ্জ পৌরসভার উপনির্বাচন অনুষ্টিত হবে।

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close