প্রবীণ সাংবাদিক শফিক রেহমানের মুক্তির দাবীতে ফ্রান্সে প্রতিবাদ সভা

DSC_0174প্রবীণ সাংবাদকি শফকি রহেমান কে গ্রফেতাররে তীব্র নন্দিা ও প্রতবিাদ জানয়িে প্রতবিাদ সভা করছেে জাতীয়তাবাদী নাগরকি মুক্তি পরষিদ ফ্রান্স । সোমবার প্যারসিরে একটি রষ্টেুরন্টেে সংগঠনরে আহবায়ক শামমিা আক্তার রুবীর সভাপতত্বিে এবং গোলাম রসুল রুবলেরে পরচিালনায় সভায় প্রধান অতথিি ছলিনে ফ্রান্স বএিনপরি সাধারন সম্পাদক এম এ তাহরে, বশিষে অতথিরি বক্তব্য রাখনে ফ্রান্স বএিনপরি সহ সভাপতি অধ্যাপক তাসলমি উদ্দনি, মুক্তযিোদ্ধা বষিয়ক সম্পাদক ওমর গাজী, কৃষি গবষেক ডক্টর মোহাম্মদ কামরুল হাসান, প্রকৌশলী এম শরফিুল ইসলাম, বদরুল হাসান, আল আমনি, কাজি শাহনি ও সাঈদ আহম্মদে। সভায় প্রধান অতথিরি বক্তব্যে ফ্রান্স বএিনপরি সাধারণ সম্পাদক এম এ তাহরে বলনে, শফকি রহেমান সত্য উচ্চারণে অবচিল ও সাহসী এক কলমযােদ্ধা। সে কারণে সরকার তাঁকে কবজা করতে না পরেে মথ্যিা অযৌক্তকি অভযিোগে তাকে গ্রফেতার করছেে । এটি সরকাররে চরম স্বচ্ছোচারতিারই বহঃিপ্রকাশ। সরকাররে অনাচার ও র্ব্যথতার বরিুদ্ধে অবচিল নর্ভিয়ে লখিে যাওয়ার কারণে শফকি রহেমানকে গ্রফেতার করা হয়ছে।ে অবলিম্বে শফকি রহেমানসহ সকল রাজবন্দীদরে মুক্তি দয়ো না হলে ফ্রান্স থকেে কঠোর র্কমসূচি দয়োর হুশয়িারি দনে । সংগঠনরে আহবায়ক শামীমা আক্তার রুবী বলনে, দশেে কথা বলার স্বাধীনতা নইে, লখোর স্বাধীনতা নইে। শফকি রহেমান আর্ন্তজাতকি খ্যাতসিম্পন্ন সাংবাদকি, তার বরিুদ্ধে কোনো মামলাও নইে। শুধু মাত্র এই অবধৈ প্রধানমন্ত্রীর ছলেরে অপর্কম ঢাকতইে ৮৩ বছর বয়সী শফকি রহেমানরে বরিোদ্ধে মথ্যিা মামলা দয়ো হয়ছেে । তনিি অবলিম্বে শফকি রহেমান, আমার দশে সম্পাদক মাহমুদুর রহমান এবং শওকত মাহমুদসহ সকল সাংবাদকিদরে বরিুদ্ধে দায়রে করা মথ্যিা মামলা প্রত্যাহারসহ ন:ির্শত মুক্তরি দাবি জানান । সভায় অন্যান্যদরে মধ্যে উপস্থতি ছলিনে বদরুল ইসলাম, লুতফুর রহমান, ফারজানা আফরোজা, মনরিুল হক, সাইদুল ইসলাম লটিন, তছলমিা আক্তার, সজবি, এমরান হোসনে, আং রহমি খান প্রমুখ ।

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close