যে কটি ‘আজব’ কারণে নারীতে মজে পুরুষ !

narসুরমা টাইমস ডেস্কঃ মেয়েদের ঠিক কী কী কারণে পছন্দ করে পুরুষ? এক কথায় উত্তর দেওয়া মুশকিল। তবে হাতের কাছে পাওয়া যাচ্ছে ৯টি অব্যর্থ বৈশিষ্ট যা দেখে বিশ্বের প্রায় সব পুরুষই নারীর প্রতি অমোঘ আকর্ষণ বোধ করে থাকেন।

এক) সেজেগুজে এলে বান্ধবীর প্রশংসা পুরুষ মাত্রেই করে থাকেন। তবে কখনও একটু অবিন্যস্ত অবস্থায় দেখা হলে সেই মেয়েকেই চোখে হারান তাঁর অনুরাগী। তাই প্রণয়ীর নজর কাড়তে মাঝে-সাঝে কিছুটা অগোছাল থাকলে মন্দ হয় না।

দুই) উচ্চারণেও আকর্ষণ করার ক্ষমতা রাখেন মেয়েরা। অবশ্য অনেক সময়েই উল্টে নিজের এই অভ্যাস নিয়ে তাঁদের খুঁতখুঁত কাটে না। খোঁজ নিয়ে দেখুন, প্রেমিকার কথা বলার ভঙ্গিতে মুগ্ধ হয়েছেন দুনিয়ার ৯০ শতাংশ পুরুষ। ‘ওগো বধূ সুন্দরী’ ছবিতে মৌসুমি চট্টোপাধ্যায়কে এই কারণে মনে রেখেছেন অনেকেই।

তিন) মেয়েরা নরম-সরম। যে কোনও সময় তাঁরা নানা কারণে ভয় পান। এমনই ধারণা বেশির ভাগ পুরুষের। প্রিয় নারীর আতঙ্কিত মুখ-চোখ তারিয়ে তারিয়ে উপভোগও করেন তাঁরা। তবে ভয় যেন নিয়ন্ত্রণরেখার মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকে, এটাও কেয়াল রাখতে হয়। আসলে মেয়েরা ভয় পেলেই যে তাঁদের কাছে টেনে নিয়ে বীরত্ব দেখানোর সুযোগ পান পুরুষ-সিংহ!

চার) সন্তানের জন্ম দেওয়ার পর শরীরের মধ্যপ্রদেশের উপর জেগে ওঠা ‘স্ট্রেচ মার্কস’ নিয়ে বিড়ম্বনায় ভোগেন বহু মহিলা। তাঁদের ধারণা, এই দাগ তাঁদের সৌন্দর্য্যে কিছুটা হলেও থাবা বসায়। চিন্তার কারণ নেই। সন্তানের পিতা এতে আদৌ দমে যান না, উল্টে নতুন ভাবে সেই নারীরই প্রেমে পড়েন।

পাঁচ) চশমায় ঢাকা পড়ে সুন্দর চোখজোড়া। এই কারণে কনট্যাক্ট লেন্সের প্রতি ঝোঁকেন দৃষ্টি-সমস্যায় জেরবার বহু মহিলা। আসলে এঁরা হয়তো খবরই রাখেন না, মোটা ফ্রেমের ওই চশমাই পাগল করে অজস্র পুরুষকে। তাঁদের মতে, ফ্রেমবন্দি চোখেই খেলে যায় যৌন আকর্ষণের ঝিলিক।

ছয়) কখনও লক্ষ্য করেছেন কি, ড্রেসিং টেবিলের আয়নার সামনে মেক-আপ করার সময় আপনার দিকে ফ্যাল ফ্যাল করে চেয়ে রয়েছেন স্বামী অথবা প্রেমিক? আসল কারণ হল, এই অবস্থায় নারীকে দেখতে বড়ই পছন্দ পুরুষের। তার ওপর আয়না মারফত যদি আচমকা মোহময়ী কটাক্ষ হানা যায়, তাহলে নিঃসন্দেহে ‘কেল্লাফতে’!

সাত) ভারত-সহ বিশ্বের নানা দেশে পাগড়ির প্রচলন রয়েছে। কিন্তু স্নান সেরে বাথরুম থেকে ভিজে চুল তোয়ালেতে বেঁধে বের হলেই নারীর মুখের উপর দৃষ্টি থমকে যায় অধিকাংশ পুরুষের। তোয়ালে আবিষ্কারের পর থেকে যুগ যুগ ধরে এতেই কাবু দুনিয়ার তামাম প্রেমিক।

আট) আধুনিক নারী ফিগার সচেতন। তাই নিয়মিত ব্যায়াম তাঁর জীবনের অংশ। ওয়ার্ক আউট করার পর সেই ক্লান্ত ও ঘর্মাক্ত শরীরের সুপ্ত যৌন আবেদনে চোখ আটকে যায় পুরুষের। ছাপোষা গৃহস্থ বধূর সংসারের কাজে জেরবার হওয়া কর্ম-ক্লিষ্ট রূপেই কি একদা আনমনা হয়নি লাখো হৃদয়?

নয়) সত্তরের হিট ছবি ‘অনামিকা’-র কথা মনে আছে? প্রেমিক সঞ্জীবকুমারের পাঞ্জাবি গায়ে চাপিয়ে আশা ভোঁসলের ‘বাহোঁ মে চলে আও…’ গানে লিপ দেওয়ার দৃশ্যে জয়া ভাদুড়ির (বচ্চন) অনবদ্য রূপে মজেছিলেন সেকালের অগুনতি যুবক। রুপোলি পর্দার কথা ছেড়ে দিন, বাস্তবেও কোনও কারণে সুন্দরী প্রেমিকার পরণে নিজের টি-শার্ট দেখে চোখ ফিরিয়ে নিতে পারেন ক’জন ম্যাচো ম্যান!

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close