খালেদা জিয়ার রাজনীতি নিষিদ্ধের দাবি

যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সংবাদ সম্মেলন

ANA PIC

সংবাদ সম্মেলনে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ। ছবি- এনা।

নিউইয়র্ক থেকে এনা: বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়াকে সন্ত্রাসের মদদদাতা হিসাবে অভিযুক্ত করে বাংলার মাটিতে তার রাজনীতি নিষিদ্ধ করার দাবি জানিয়ে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ। গত ২২ ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যায় ( নিউইয়র্ক সময়) বাংলাদেশী অধ্যুষিত জ্যাকসন হাইটসের পালকি পার্টি সেন্টারে অনুষ্ঠিত এক সংবাদ সম্মেলনে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ এই দাবি জানান।
যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আক্তার হোসেনের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদুর রহমান সাজ্জাদের পরিচালনায় সংবাদ সম্মেলনে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি সৈয়দ বসারত আলী, মাহবুবুর রহমান, আবুল কাশেম, লুৎফুল করিম, যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সহ সাধারণ সম্পাদক আব্দুস সামাদ আজাদ, যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুর রহিম বাদশা, ফারুক আহমেদ, চন্দন দত্ত, আব্দুল হাসিব মামুন, আওয়ামী লীগ নেতা সোলায়মান আলী, তৈয়বুর রহমান টনি, মাহবুবুর রহমান টুকু, শিরিন আক্তার দিবা প্রমুখ।
সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি শামসুদ্দিন আজাদ বলেন, আপনারা নিশ্চয় অবগত আছেন, গত ৬ জানুয়ারি থেকে তথাকথিত গণতান্ত্রিক আন্দোলনের নামে আজ অবধি চলছে হরতাল, অবরোধ। তার সাথে সংযোজন হয়েছে বাসে ভয়াবহ পেট্রোল বোমা মেরে সাধারণ মানুষ হত্যা। রেল লাইনের ফিসপ্লেট খুলে ফেলা এবং যাত্রীবাহী ট্রেনে আগুন দেয়া। তিনি বলেন, রাতের অন্ধকারে যাত্রীবাহী বাসে, ট্রাকে, সিএনজি, অটো রিক্সায় পেট্রোল বোমা মেরে যে মধ্যযুগীয় বর্বরতা বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়া শুরু করেছেন, বাংলাদেশের মানুষকে তিনি জিম্মি করেছেন এবং আতংকিত করেছেন। আজ প্রায় ১ মাস ১৫ দিন যাবত তিনি বাংলাদেশকে মৃত্যুপুরীতে পরিণত করেছেন। এমনি অবস্থায় বাংলাদেশের গণতন্ত্রকামী মানুষ, স্কুল- কলেজের ছাত্রছাত্রী, বিভিন্ন পেশাজীবী সংগঠন, মানবাধিকার সংগঠন, অন্তর্জাতিক সংগঠন, জাতিসংঘ, ইউরোপীয় ইউনিয়ন, হিউম্যান রাইটস, নতুন মার্কিন রাষ্ট্রদূত, ভারতীয় সরকার, চীনের রাষ্ট্রদূত, জাপানের রাষ্ট্রদূতসহ সকলেই খালেদা জিয়াকে আহবান জানিয়েছেন এমন সন্ত্রাসী এবং জঙ্গীবাদী তৎপরতা থেকে বেরিয়ে আসার জন্য। তার কর্মকান্ডের মনে হয় তিনি জঙ্গীনেত্রীতে পরিণত হয়েছেন। তিনি ক্ষোভের সাথে বলেন, আমরা যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ বেগম খালেদা জিয়ার এমন বর্বরোচিত জঘণ্য অপরাধের তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি এবং খালেদা জিয়াকে সন্ত্রাসের মদদদাতা হিসাবে অভিযুক্ত করে বাংলার মাটিতে তার রাজনীতি নিষিদ্ধের দাবি জানাচ্ছি। সংবাদ সম্মেলনে অবরোধ ও হরতালে ক্ষয়ক্ষতি এবং বাসে আগুন দিয়ে মানুষ হত্যার পরিসংখ্যান তুলে ধরা হয়। পুলিশ সদর দপ্তরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী ১৮৯ টি বাস পেট্রোল বোমায় জ্বালিয়ে দেয়া হয়, ৪৫৭টি যানবাহন পোড়ানো হয়, ২২ টি স্থাপনায় অগ্নিসংযোগ করা হয়, ৪০৩টি যানবাহন ভাংচুর করা হয়, ১০টি স্থাপনা ভাংচুর করা হয়, ১৫৪৪টি ককটেল নিক্ষেপ করা হয়, ১৯৯ জন মানুষ পেট্রোল বোমায় দগ্ধ হয়, ৬১৪ জন আহত হয়, ১ জন পুলিশ নিহত হয়, ৯০ জন মানুষ অগ্নিদগ্ধ হয়ে মারা যায়, ২৭৬ জন পুলিশ আহত হয়, ৫১৩ জন সাধারণ মানুষ আহত হয়।
সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আক্তার হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদুর রহমান সাজ্জাদ বিএনপির সহ সভাপতি ও ঢাকার সাবেক মেয়র সাদেক হোসেন খোকার বক্তব্যকে চ্যালেঞ্জ দিয়ে বলেন, আপনার কোন ক্ষমতা নেই এই সরকারকে হটানোর এবং ৩০ মিনিটের মধ্যে ঢাকাকে আওয়ামী লীগ শুণ্য করার। তারা বলেন, ৩০ মিনিটে নয়, আওয়ামী লীগকে আগামী ৩০ বছরেও সরানো যাবে না। তারা বলেন, বিএনপি হলো ভুয়া ও জালিয়াতির দল। এরা আমেরিকার ৬ জন কংগ্রেসম্যানের স্বাক্ষর জাল করেছে।
সংবাদ সম্মেলন শেষে আওয়ামী লীগের কার্যকরী কমিটির সদস্য জসীম উদ্দিন খান মিঠুর রুহের মাগফেরাত কামনা করে দোয়া করা হয় এবং স্মৃতিচারণমূলক সভার আয়োজন করা হয়।

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close