সিসিক কর্মকর্তা খোকনকে লাঠিপেটা, এসআই বিকাশ বদলি

SSC Employeesসুরমা টাইমস ডেস্কঃ সিলেট সিটি করপোরেশনের উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী আবুল ফজল খোকনের সাথে অসদাচরণ করায় বন্দরবাজার ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই বিকাশকে বদলি করা হয়েছে। সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার মোহাম্মদ রহমত উল্লাহ এ তথ্য জানিয়েছেন।
জানা গেছে, বৃহস্পতিবার সকালে মোটর সাইকেল নিয়ে নগরভবনে ঢুকতে যান সিটি করপোরেশনের উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী আবুল ফজল খোকন। এ সময় পুলিশ তার পরিচয় জানতে চাইলে তিনি সিসিক’র কর্মকর্তা পরিচয় দেন। পুলিশ পরিচয়পত্র দেখাতে বললে খোকন ‘সাথে নেই’ বলে জানান। এ নিয়ে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে পাশে থাকা আর্মড পুলিশের এক সদস্য এসে খোকনকে চড় মারেন।
এ ঘটনার পর খোকন নগরভবনে ঢুকে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বিষয়টি জানালে উত্তেজনা দেখা দেয়। পরে নগরভবন থেকে বের হয়ে আসেন কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। দুপুর সাড়ে ১২টা থেকে প্রায় ২ ঘন্টা কর্মবিরতি পালন করেন তারা। নগরভাবন প্রাঙ্গণে তারা SCC Employees2বিক্ষোভ সমাবেশ করে। সেখানে বক্তব্য রাখেন সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এনামুল হাবীব। এক পর্যায়ে কতোয়ালী থানার ওসি আসাদুজ্জামান সিটি করপোরেশন প্রাঙ্গণে আসেন এবং সিসিক কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন।
এনামুল হাবীব তার বক্তব্যে বলেন, পুলিশ প্রশাসন ও সিটি করপোরেশন দুটিই সরকারী প্রতিষ্ঠান। সিসিক কর্মকর্তার সাথে পুলিশ সদস্যের ঘটনাকে ভুল বুঝাবুঝি বলে মন্তব্য করেন তিনি। ওসি তার বক্তব্যে এ ঘটনার জন্য দুঃখ প্রকাশ করে বলেন, ‘বন্দরবাজার ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই বিকাশের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।’ ওসির এমন আশ্বাসের পর সিসিক কর্মকর্তা-কর্মচারীরা বিক্ষোভ সমাবেশ সমাপ্ত করেন। পরে এসআই বিকাশকে বন্দরবাজার পুলিশ ফাঁড়ি থেকে বদলি করে কতোয়ালী থানায় নেয়া হয়।
এদিকে এ ঘটনাকে ‘পরিকল্পিত’ বলে মন্তব্য করেছেন সিসিকের উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী আবুল ফজল খোকন। তিনি বলেন, ‘পরিচয় দেয়ার পরও পুলিশ যে আচরণ করেছে তাতে বুঝা যায় ঘটনাটি পরিকল্পিত। এ ঘটনায় সিসিকের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা প্রায় দুই ঘন্টাব্যাপী কর্মবিরতি পালন করে বিক্ষোভ-সমাবেশ করেছে।’

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close