কানাইঘাট মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কাউন্সিল নির্বাচনে নজমুল হক সমর্থিত প্যানেল বিজয়ী

Pic 2কানাইঘাট প্রতিনিধি ঃ একযোগে সারাদেশে অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ নির্বাচনে কানাইঘাট উপজেলা কমান্ড নির্বাচনে নজমুল হক সমর্থিত ১১সদস্য বিশিষ্ট পুরো প্যানেল জয়লাভ করেছে। উপজেলা কমান্ড নির্বাচনে ১৯২জন ভোটারের মধ্যে ১৫৭জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন। নির্বাচনে ৩টি প্যানেল পৃথকভাবে অংশগ্রহণ করলেও উপজেলা কমান্ডার পদে (হাতি) মার্কা নিয়ে নজমুল হক (৬১) এবং ডেপুটি কমান্ডার পদে একই প্যানেলের সাদ উদ্দিন (৫৯) ও সহকারী ইউনিট কমান্ডার পদে ল্যাঃ নায়েক মোঃ নুরুল ইসলাম (৬২) ভোট পেয়ে জয়লাভ করেন। উক্ত প্যানেলের ১১জন প্রার্থী হাতি মার্কা প্রতিক নিয়ে বিজয়ী হয়েছেন। নিকটতম প্রতিদ্বদ্বি প্রার্থী কমান্ডার পদে (বর্তমান কমান্ডার) নুরুল হক (ঘোড়া) প্রতীক নিয়ে (৫২), অপর প্যানেলের আনোয়ারুল হক একই পদে (কলস) প্রতীক নিয়ে (৩৭) ভোট পেয়েছেন। অপরদিকে জেলা কমান্ড কাউন্সিল নির্বাচনে সুব্রত চক্রবর্তী জুয়েল মনোনীত পুরো প্যানেল এগিয়ে রয়েছে। উক্ত প্যানেলের জেলা ইউনিট কমান্ডার পদে সুব্রত চক্রবর্তী (হেলিকপ্টার) প্রতীক নিয়ে (৯৭), ডেপুটি কমান্ডার পদে মোঃ আকরাম আলী (৯৩) এবং অধ্যক্ষ সিরাজুল ইসলাম (৯৯) ভোট পেয়েছেন। অপর প্যানেল থেকে ইউনিট কমান্ডার পদে মির্জা জামাল পাশা (পদ্মফুল) নিয়ে (২২), মোঃ লুৎফুর রহমান বাস প্রতীক নিয়ে (১৩) ভোট পেয়েছেন। এছাড়া মুক্তিযোদ্ধা কেন্দ্রীয় কমান্ড কাউন্সিল নির্বাচনে আব্দুল আহাদ চৌধুরী সমর্থিত পুরো প্যানেল ভোটের লড়াইয়ে এগিয়ে রয়েছেন। উক্ত প্যানেলের চেয়ারম্যান পদে আব্দুল আহাদ চৌধুরী (দোয়াত-কলম) প্রতীক নিয়ে (১৩৬) ভোট পেয়েছেন। অপরদিকে চেয়ারম্যান পদে মেজর জেনারেল (অবঃ) জি.এইচ মোর্শেদ খান বীর বিক্রম (টেলিভিশন) প্রতীক নিয়ে মাত্র (০২) ভোট পেয়েছেন। সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত একটানা অনুষ্ঠিত উক্ত নির্বাচনে রিটার্নিং অফিসারের দায়িত্ব পালন করেন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তারেক মোহাম্মদ জাকারিয়া ও প্রিজাইডিং অফিসারের দায়িত্ব পালন করেন, উপজেলা ভারপ্রাপ্ত সমাজসেবা কর্মকর্তা দেবব্রত দাস ও উপজেলা পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা রবিন্দ্র চন্দ্র তালুকদার।

জীবনের শেষ ইচ্ছাটি পূরণ হলো না বীর মুক্তিযোদ্ধা সত্যেন্দ্র দাসে’র

কানাইঘাট প্রতিনিধি ঃ মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কাউন্সিলের নির্বাচনে ভোট দেওয়া হলো না কানাইঘাটের প্রবীণ বীর মুক্তিযোদ্ধা সত্যেন্দ্র দাসের। গতকাল বুধবার সকাল ১১টার দিকে উপজেলার ৫নং বড়চতুল ইউপির হারাতৈল বেতু গ্রামের বীর মুক্তিযোদ্ধা সত্যেন্দ্র দাস (৮০) তার অসুস্থতাকে উপেক্ষা করে মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কাউন্সিলের নির্বাচনে ভোট দেওয়ার জন্য ভোটকেন্দ্রে আসার প্রস্তুতি গ্রহণ করেন। এ সময় তিনি চরম অসুস্থবোধ করলে তাঁকে চিকিৎসার জন্য পরিবারের লোকজন সিলেট ওমেক হাসপাতালে নিয়ে যান। চিকিৎসাধীন অবস্থায় সেখানে তিনি বিকেল ২টায় পরলোক গমন করেন। পরে এ বীর মুক্তিযোদ্ধাকে পূর্ণ রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় নিজ গ্রাম হারাতৈল বেতু গ্রামে শশ্মানে সৎকার করা হয়। এদিকে বীর মুক্তিযোদ্ধা সত্যেন্দ্র দাসের মৃত্যুতে তাঁর শোকাহত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা এবং তাঁর বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার নুরুল হক, ডেপুটি কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা খলিলুর রহমান, বীর মুক্তিযোদ্ধা সুবেদার আফতাব উদ্দিনসহ নেতৃবৃন্দ।

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close