এতিম হিসেবে সমাজে প্রতিষ্টিত জনেরা এতিমদের জন্য এগিয়ে আসা উচিত

নবীগঞ্জে দাইমুদ্দিন এতিমখানা’র ২৫ বছর পুর্তি ও ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প অনুষ্টানে সমাজকল্যাণ মন্ত্রী

PIC _24-03-2015=1উত্তম কুমার পাল হিমেল, নবীগঞ্জ(হবিগঞ্জ) থেকেঃ
সমাজ কল্যাণ মন্ত্রী সৈয়দ মহসীন আলী এমপি বলেছেন, যারা এতিম হিসেবে সমাজে প্রতিষ্টা পেয়েছে, তাদের উচিত এতিমদের জন্য সহযোগীতার হাত বাড়িয়ে দেয়া। তিনি গতকাল মঙ্গলবার নবীগঞ্জ উপজেলার বাউসা ইউনিয়নের বদরদী গ্রামে দাইমুদ্দিন এতিমখানা ও হাফিজিয়া মাদরাসার ২৫ বৎসর পুর্তি উপলক্ষ্যে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প ও ঔষধ বিতরণ অনুষ্টানে প্রধান অতিথির বক্তৃতাকালে এ সব কথা বলেন। তিনি টাঙ্গাইলের জনৈক এতিম ( প্রতিষ্টিত ব্যবসায়ী )এর উদ্ধৃতি দিয়ে আরও বলেন ওই এতিম ব্যক্তি তার জীবনের উপার্জন প্রায় ২ শত কোটি টাকা এতিমদের কল্যাণে ট্রাষ্ট করে দিয়ে মহৎ কাজের পরিচয় দিয়েছেন। তিনি এতিম মাদরাসার উন্নয়নে ব্যক্তিগত তহবিল থেকে ৫০ হাজার টাকা অনুদান প্রদান করেন। দাইমুদ্দিন এতিমখানা ও হাফিজিয়া মাদরাসার প্রতিষ্টাতা চেয়ারম্যান মেম্বার অফ বৃটিশ এম্পেয়ার আলহাজ্ব গোলাম মোস্তফা চৌধুরী (এমবিই) এর সভাপতিত্বে ও কেন্দ্রীয় ছাত্র PIC_ 24-03-2015=2সমাজের সদস্য স্বপন চৌধুরীর পরিচালনায় অনুষ্টানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন প্রতিষ্টাতা পরিবারের সদস্য হবিগঞ্জ জেলা পরিষদের প্রশাসক ডাঃ মুশফিক হোসেন চৌধুরী। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা জাপার সভাপতি এমএ মুনিম চৌধুরী বাবু এমপি, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) আব্দুর রউপ, হবিগঞ্জ ডায়াবেটিক এসোসিয়েশনের সভাপতি শহীদ উদ্দিন চৌধুরী, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ আলমগীর চৌধুরী, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ লুৎফর রহমান, পৌরসভার মেয়র অধ্যাপক তোফাজ্জল ইসলাম চৌধুরী, সহকারী পুলিশ সুপার সাজিদুর রহমান, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব সাইফুল জাহান চৌধুরী ও অফিসার ইনর্চাজ মোঃ লিয়াকত আলী। অন্যানের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আনোয়ারুর রহমান, প্রাক্তন চেয়ারম্যান আব্দুল হাই, আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মোস্তাক আহমদ মিলু, স্বেচ্ছাসেবক লীগের আহ্বায়ক আমিনুল ইসলাম সুমন, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা লন্ডন প্রবাসী ও বিশিষ্ট সমাজ সেবক জুনেদ আহমদ চৌধুরী প্রমূখ। সমাজ কল্যাণ মন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দ মহসীন আলী বেলা সাড়ে ১১ টায় অনুষ্টান স্থলে পৌছলে প্রতিষ্টানের ছাত্র, শিক্ষকসহ অন্যান্য অতিথিবৃন্দ তাকে অভ্যর্থনা জানান। এ সময় পুলিশের পক্ষ থেকে গার্ড অব অনার প্রদান করা হয়। অনুষ্টান শেষে মন্ত্রী এবং অতিথিবৃন্দ ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্পের শুভ উদ্বোধন করেন। উক্ত মেডিকেল ক্যাম্পে অভিজ্ঞ ডাক্তারগণ প্রায় কয়েক শতাধিক দরিদ্র লোকদের মাঝে চিকিৎসা সেবা ও বিনামুল্যে ঔষধ বিতরণ করেন।

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close