গত আড়াই বছরে সিলেট থেকে এক কেজি পণ্যও রপ্তানী হয়নি

arifসুরমা টাইমস ডেস্কঃ সিলেট থেকে সকল ধরণের পণ্য রপ্তানী প্রক্রিয়া সহজতর করার দাবি জানিয়ে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়ার আহবান জানিয়েছেন সিলেটের বিশিষ্টজন। গতকাল বৃহস্পতিবার বিদেশী গণমাধ্যমের প্রতিনিধিদের সংগঠন ওভারসীজ করেসপন্ডেন্ট এসোসিয়েশন (ওকাস) আয়োজিত যুক্তরাজ্য ও বাংলাদেশে দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য উন্নয়ন বিষয়ক মতবিনিময় সভায় তারা এ আহবান জানান।
এ সময় বক্তারা বলেন, একমাত্র সিলেট থেকে সরাসরি কোন আন্তর্জাতিক ফ্লাইট না থাকায় সিলেটের ব্যবসায়ীরা পণ্য রপ্তানী করতে পারছেন না। গত আড়াই বছরে সিলেট থেকে এক কেজি পণ্যও রপ্তানী করা যায়নি বলে বক্তারা জানান।
সিলেট নগরীর একাটি অভিজাত হোটেলে আয়োজিত সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সিলেটের অতিরিক্ত ডিআইজি সাখাওয়াত হোসেন, বাংলাদেশ বিমানের ডিস্ট্রিক ম্যানেজার শোয়েব আহমদ নিজাম, চ্যানেল এস ইউকে’র চিফ রিপোর্টার মোহাম্মদ জোবায়ের। অনুষ্ঠানের মুখ্য আলোচক ছিলেন জেএমজি’র ব্যবস্থাপনা পরিচালক ব্রিটিশ বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্সের পরিচালক বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মনির আহমদ।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেন, সিলেট রাজনৈতিক ও ধর্মীয় সম্প্রীতির শহর। এখানে বিভিন্ন দল ও মতের মানুষ এক হয়ে কাজ করছেন। এরকম স¤প্রীতি বাংলাদেশের অন্য যেকোন শহর থেকে ভিন্ন। তিনি বলেন, তবে ইদানিং প্রশাসনের কিছু আমলা সিলেটবাসীর এই সম্প্রীতি ভাঙার চেষ্টা করছেন। কিন্তু এতে তারা সফল হবেন না।
প্রবাসী হয়রানী বন্ধে সিলেট সিটি করপোরেশন বিশেষ ভূমিকা রাখছে জানিয়ে মেয়র বলেন, খুব শিগগিরই আমরা প্রবাসীদের জন্য ই-সেবার ব্যবস্থা করছি। যার মাধ্যমে প্রবাসীরা বিদেশে বসে আমাদের সাথে ইমেইলে যোগাযোগ কিংবা যেকোন অভিযোগ জানাতে পারবেন।
ওকাস সভাপতি সাংবাদিক খালেদ আহমদের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক দৈনিক সিলেটের ডাক এর ডেপুটি চিফ রিপোর্টার মোহাম্মদ তাজ উদ্দিনের উপস্থাপনায় শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন চ্যানেল এস সিলেট অফিসের চিফ রিপোর্টার মঈন উদ্দিন মঞ্জু। অনুষ্ঠানে আলোচনায় অংশ নেন বিশিষ্ট আওয়ামী লীগ নেতা আনম শফিকুল হক, সিলেট প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি আহমেদ নূর ও মুকতাবিস উন নূর, সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ সিরাজুল ইসলাম, সিলেট চেম্বার অব কমার্সের সাবেক সিনিয়র সহসভাপতি লায়েছ উদ্দিন, জেলা ফুটবল এসোসিয়েশনের সভাপতি মাহি উদ্দিন আহমদ সেলিম, জেএমজি হিথ্রো শাখার পরিচালক সামসাদুর রহমান সাহিম, বাংলাদেশ ওভারসিজ সেন্টারের এইচএম খলিল, জালালাবাদ ফ্রুটস এন্ড ভ্যাজিটেবল এক্সপোর্টার্স এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মঞ্জুর আহমদ প্রমুখ।
বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সিলেটের অতিরিক্ত ডিআইজি মোহাম্মদ সাখাওয়াত হোসেন ওকাসের এই উদ্যোগের প্রশংসা করে বলেন, প্রবাসীদের নিরাপত্তার জন্য পুলিশ প্রশাসন নীরবে কাজ করে যাচ্ছে। তিনি বলেন, গত জানুয়ারি থেকে বর্তমান মাস পর্যন্ত পুলিশের প্রবাসী কল্যাণ সেলে ৪৮টি অভিযোগ আসে। এরমধ্যে ৪৩টি অভিযোগই নিস্পত্তি করা হয়েছে। বাকি ৫টিও নিস্পত্তির পথে।
তিনি বলেন, আমাদের শত প্রতিবন্ধকতা পেরিয়ে সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে। তবেই বাংলাদেশ একদিন উন্নত দেশে পরিণত হবে।
মুখ্য আলোচকের বক্তব্যে ব্রিটিশ বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্সের পরিচালক বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মনির আহমদ বলেন, জেএমজি বিশ্বব্যাপী একটি সুপরিচিত প্রতিষ্ঠান। এটি শুরু করার পর অনেক প্রতিবন্ধকতা সামনে এসেছে। কিন্তু আমি থামিনি। সকল প্রতিকুলতা কাটিয়ে উঠে জেএমজিকে বিশ্বব্যাপী জনপ্রিয় করে তুলেছি। তিনি এটাকে পেশা হিসেবে না দেখে সেবা হিসেবে বেছে নিয়েছেন বলে মন্তব্য করেন।
তিনি বলেন, ব্যবসার পূর্ব শর্ত তিনটি। শুদ্ধতা, সততা ও দক্ষতা এই তিনটি গুণ না থাকলে ব্যবসায় সফলতা পাওয়া সম্ভব নয়।

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close