৫ বছর থেকে বেতন ভাতা পাচ্ছেন না কানাইঘাট পৌরসভার পরিচ্ছন্ন কর্মী

kanaighat news- picture-nasir miahকানাইঘাট (সিলেট) প্রতিনিধি : নিয়োগ পাওয়ার পাঁচ বছর অতিবাহিত হলেও অদ্যাবদি বেতন ভাতা থেকে বঞ্চিত কানাইঘাট পৌরসভার এক পরিচ্চন্ন কর্মী। তিনি কানাইঘাট পৌরসভার ডালাইচর গ্রামের মৃত তারা মিয়ার পুত্র নাসির মিয়া।
জানা যায়, বিগত ১১ জানুয়ারী ২০১২ইং সালে উক্ত নাসির মিয়াকে (কাপৌস/কানাই/ নিয়োগ/২০১২/২৯(১) স্বারকে পৌরসভার পরিচ্ছন্ন কর্মী হিসেবে (মাষ্টার রোল) এ কাজ করার জন্য বিগত ২৭ মার্চ ২০১১ সালের মাসিক সাধারণ সভার সিদ্ধান্তের আলোকে নিয়োগ প্রদান করা হয়। যাহা (কাপৌস/কানাই/নিয়োগ/২০১২/২৯(৫) নং স্বারকে স্থানীয় প্রশাসন সহ সরকারে উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হয়।
নিয়োগ পাওয়ার পর থেকে যথারীতি কানাইঘাট পৌর শহর পরিচ্ছন্নের কাজ করে আসলেও কেবল আশ্বাসের বৃত্তেই বন্দী রয়েছে তার বেতন ভাতা। এ ব্যাপারে গত ২৮ সেপ্টেম্বর কানাইঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবরে একটি লিখিত আবেদনও করেন নাসির মিয়া। কানাইঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তারেক মুহাম্মদ. জাকারিয়া গত ৪ অক্টোবর (উনিঅকা/কানাই/সিলেট/২০১৫/৫৫৭ নং স্বারকে এবিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে দরখাস্তটি কানাইঘাট পৌরসভার মেয়র বরাবরে প্রেরণ করেন।
এব্যাপারে পরিচ্ছন্ন কর্মী নাসির মিয়া অভিযোগ করে বলেন, শুধু বেতন ভাতা পাওয়ার আশ্বাস নিয়েই বিগত ৫ বছর থেকে তিনি কানাইঘাট পৌর শহরের যাবতীয় ময়লা আর্বজনা পরিস্কার করে আসছেন। বর্তমানে তিনি পরিবার পরিজন নিয়ে অভাব অনটন আর দরিদ্রতার চরম পর্যায়ে এসে অসুস্থ হয়ে পড়ার পরও কানাইঘাট পৌরসভা থেকে কোন বেতন ভাতা পাচ্ছেননা।
এদিকে কানাইঘাট পৌরসভার প্রকৌশলী মনির হোসেন বলেন, উল্লিখিত ব্যাক্তিসহ ৪জনকে কানাইঘাট পৌরসভার ময়লা আর্বজনা পরিস্কারের জন্য নিয়োগ প্রদান করা হয়েছিল। যাহার মাধ্যমে তারা কানাইঘাট বাজার পরিস্কার পরিচ্ছন্ন করে ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে চাদা আদায় করে পারিশ্রমিক নেওয়ার জন্য অনুমতি প্রদান করা হয়েছিল। তিনি বলেন উক্ত নিয়োগটি (মাষ্টার রোলে) ছিলনা এবং ইহাতে বেতন ভাতা প্রদানের কোন নির্দেশনাও ছিলনা।
অপরদিকে কানাইঘাট পৌরসভা থেকে বেতন ভাতা পাওয়ার জন্য যথাযত ব্যবস্থা নিতে সরকারের সংশিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি জোর দাবী জানিয়েছেন কানাইঘাট পৌরসভার পরিচছন্ন কর্মী নাসির মিয়া।

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close