শিশু সামিউলের ঘাতক কামরুলের সৌদি পলায়ন! পিতাকে হত্যার হুমকি!

Samul Razonসুরমা টাইমস ডেস্কঃ শিশু শেখ সামিউল আলম রাজনের হত্যায় জড়িত মুহিত গ্রেফতার হওয়ার পর থেকেই অন্য খুনিরা রাজনের পিতা আজিজুর রহমান কে হত্যার হুমকি দিচ্ছে বলে আভিযোগ পাওয়া গেছে। আজিজুর রহমান বলেন, আমাকে হুমকী দিয়ে যাচ্ছে। তারা বলছে- ‘তোর ছেলেরে মারছি। অখন তোরে মারিফালাইমু।’ আমার ছেলেরে চুরির অভিযোগ দিয়ে মারছে। সে চোর না। আমরা গরীব হতে পারি। কিন্তু চোর না।
শিশু রাজনের পিতা শেখ আজিজুর রহমান আরও জানান, আমি খোঁজ নিয়ে জেনেছি আমার ছেলের খুনি কামরুল সৌদী আরব পালিয়ে গেছে। সে সৌদী প্রবাসী ছিলো। ঘটনার পরদিনই সে পালিয়ে যায়। তিনি বলেন, এখন আপনারাই আমার ছেলের খুনিকে দেশে ফিরিয়ে আনার ব্যবস্থা করতে পারেন। আমি গরীব মানুষ। আমার পক্ষে তো কিছু করা সম্ভব নয়। একমাত্র আল্লাহ চাইলেই আমার ছেলের খুনিদের বিচার হবে।
Samiul_Killersকামরুল এ ঘটনায় গ্রেফতার হওয়া মুহিতের ভাই এবং ভিডিওচিত্র দেখে হতাকান্ডে তার সম্পৃক্ততা নিশ্চিত হয়েছে পুলিশ। কামরুল সৌদী আরব প্রবাসী ছিলো বলে জানা গেছে।
সিলেট জালালাবাদ থানার ওসি আক্তার হোসেন জানান, কামরুল সৌদী আরব পালিয়ে গেছে বলে তিনি শুনেছেন। তবে নিশ্চিত হতে পারেন নি। এ ব্যাপারে খোঁজ খবর নিচ্ছেন। ইমিগ্রেশনকেও কামরুলের ব্যাপারে সতর্ক করে দেওয়া হয়েছে।
গত ৭ সিলেট কুমারগাঁও বাসস্টেশন এলাকায় বিভৎস নির্যাতন চালিয়ে হত্যা করা হয় শিশু রাজনকে। শিশুটিকে নির্যাতনের সময় মোবাইল ফোনে সেই দৃশ্য ধারণ করে ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেয় খুনিরা। এই পৈচাশিক ভিডিও মিডিয়া ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচারিত হওয়ার পর সারা দেশজুড়ে এ ঘটনায় নিন্দার ঝড় উঠে।
হত্যার পর বুধবার রাজনের মরদেহ গুম করার চেষ্টা করে খুনিরা। এসময় শিশু শেখ সামিউল আলম রাজনের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ আটক করা হয় মুহিতকে (২৫)। পরবর্তীতে ভিডিওচিত্র দেখে এই ঘটনার সাথে অপরাপর জড়িতদের সনাক্ত করে পুলিশ। মুহিত ছাড়াও রাজনকে হত্যার সাথে সম্পৃক্ত ছিলো তার ভাই কামরুল ইসলাম (২৪), তাদের সহযোগী আলী হায়দার (৩৪) ও নৈশপ্রহরী ময়না মিয়া (৪৫)।

শিশু শেখ সামিউল আলম রাজনের হত্যায় জড়িত মুহিত গ্রেফতার হওয়ার পর থেকেই অন্য খুনিরা রাজনের পিতা আজিজুর রহমান কে হত্যার হুমকি দিচ্ছে বলে আভিযোগ পাওয়া গেছে। আজিজুর রহমান বলেন, আমাকে হুমকী দিয়ে যাচ্ছে। http://surmatimes.com/2015/07/13/20925.aspx/

Posted by Surma Times on Sunday, July 12, 2015

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close