চাকুরি নিবো না কি দিবো?

The WTTC has announced the appointment of its new business development manager

The WTTC has announced the appointment of its new business development manager

গতদিন ছিল আমার শাবিপ্রবি (শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়) জীবনের শেষ পরীক্ষা, ভাইভা এর মাধ্যমে শেষ হলো মাস্টার-লেভেলের পড়াশোনা। এরপর SUST Economics 19th Batch​ এর ইফতার মাহ্‌ফিল। শ্রদ্ধেয় স্যাররা ছিলেন সেখানে। স্মৃতি, আবেগ এবং অতি দরকারি উপদেশ-পরামর্শের মাঝ দিয়ে উঠে এসেছিল যে সবাই চাকুরি চায়, পার্থক্য এই যে কেউ হয়তোবা সরকারি চাকুরি চায় আর কেউ হয়তোবা প্রাইভেট প্রতিষ্ঠানে। সেই দিক দিয়ে আমাদের ব্যাচ সফল যে ইতোমধ্যে কয়েকজন বের হওয়ার আগেই ভাল ভাল চাকুরি বাগিয়ে নিয়েছে।
তবে আমি ভাবছি, সবাই যখন চাকুরি-চাকুরি করছে তখন সবাইকে এই চাকুরি দেয়ার দায়িত্বটা কে নিবে। বিসিএস নিয়ে কথা হলো, মাল্টি-ন্যাশনাল কোম্পানি নিয়ে কথা হলো, অন্যান্য এনজিও নিয়েও কথা হলো, দেশীয় সংস্থাও বাদ যায়নি অবশ্যই। কিন্তু, একটা জিনিস কারোর কথাতেই এলো না, আর তা হলো উদ্যোগ নেয়ার কথা।
মানুষ জন্ম নিয়েছে নিজের বা স্ব-সমাজের সমস্যা উদ্যোগী হয়ে সলভ্‌ করবার জন্য। প্রতিটা ইনভেনশন ঠিক তখনই হয়েছে যখনই মানুষ তার অভাব বোধ করেছে। বাংলাদেশের অন্যতম প্রধান সমস্যা বেকারত্ব, আমরা-আমাদের ব্যাচম্যাটরা সেই সংখ্যাটা আরও একটু বাড়িয়ে দিলাম গতকাল থেকে, শেষ পরীক্ষা দেয়ার মাধ্যমে। একবার হয়তো ভেবে দেখা দরকার ছিল কারও না কারও, চাকুরি যেমন বাগিয়ে নিবার কম্ম আমাদের ঠিক একইভাবে চাকুরি তৈরি করবার দায়িত্বটাও আমাদের। শুধু সমাজ এবং দাতাসুলভ দৃষ্টি থেকে নয় বরং নিজের বেকারত্ব নিজে ঘুচাবার জন্যই তা দরকার।
আজ প্রাণ-আরএফএল ১০০ এর অধিক দেশে ব্যবসা করছে, অথচ এর জন্ম ১৯৮১ সালে, চাকুরি সংস্থান করেছে ৫৮ হাজার মানুষের, মাত্রই এক প্রজন্ম আগে শুরু করা প্রতিষ্ঠান আজ এই পর্যায়ে (১)।
বাংলাদেশে আজ গ্র্যাজুয়েট বেকার হলো ৪৭% (২)। নিশ্চিতভাবে খুবই ভয়ানক একটা অবস্থা। এখন তাই সময় একেবারে নতুন করে চিন্তা করার। নিজের সংস্থান নিজে করার, অন্যকেও যেনো পার্ট-টাইম বা ফুল-টাইম চাকুরি দেয়া যায় সেই ব্যাবস্থা করার, নতুবা ‘চাকুরি’-কে আমরা অযথাই নতুন উপাস্য বানিয়ে ফেলবো অজান্তেই। মানুষ জন্ম নিয়েছে চাকুরি করবার জন্য নয়, ধর্মীয়দিক থেকে এসেছে মহান সৃষ্টিকর্তার প্রতিনিধিত্ব করবার জন্য আর সামাজিক দিক থেকে এসেছে উদ্যোগী হয়ে সব ধরনের সমস্যা নিজেই সমাধান করবার জন্য। এর জন্য একটাই জিনিস দরকার, আর তা হলো, মনে প্রাণে বিশ্বাস করা, ‘আমি পারবোই, এবং জন্মগতভাবে আমি এই শক্তি নিয়ে জন্মেছি।’

লেখকঃ ইনামুল হাফিজ লতিফী, ভাইস প্রেসিডেন্ট, বাংলাদেশ ইয়ুথ ডেভেলপ্‌মেন্ট ইনিশিয়েটিভ।

সুত্রঃ (১) https://goo.gl/Xx5UV2

(২) http://goo.gl/9iG1mv

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close