কোকাকোলার আইটি পদে বসেই আমিনুল চালাতেন জঙ্গি তৎপরতা!

aminulসুরমা টাইমস ডেস্কঃ তাঁর নাম আমিনুল ইসলাম বেগ। বয়স ৫০। কাজ করেন বিশ্ববিখ্যাত কোমল পানীয় কোকাকোলো কোম্পানির বাংলাদেশের আইটি বিভাগের চিফ হিসেবে। রীতিমতো দেশের বাইরে কম্পিউটার বিজ্ঞানে পড়াশোনা করে এসেছেন।
আইটি বিশেষজ্ঞ হিসেবেও পরিচিত মহলে নাম রয়েছে তাঁর। উপরের এইসব পোশাকী পরিচয়ের বাইরে তাঁর মূল পরিচয় তিনি নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন জেএমবি’র সমন্বয়ক, ইরাক-সিরিয়ায় গণহত্যা চালানো আন্তর্জাতিক জঙ্গি সংগঠন আইএস’র সমর্থন করে সেখানে ‘জিহাদের’ উদ্দেশ্যে লোক পাঠানোর প্রস্তুতি নিচ্ছেন। বাংলাদেশে খেলাফত রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠায় চালাচ্ছেন ভয়ঙ্কর সব তৎপরতা।
রোববার (২৪ মে) দিবাগত রাতে রাজধানীতে পৃথক অভিযান চালিয়ে জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেট’র (আইএস) জঙ্গি সন্দেহে আমিনুল ইসলাম বেগ (৫০) ও তার সহযোগী সাকিব বিন কামাল (৩৩) গ্রেফতার করে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে একজনকে উত্তরা মডেল থানার সেক্টর-১৪ এর ১১ নম্বর রোড থেকে এবং অপরজনকে মোহাম্মদপুরের লালমাটিয়া এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে একটি ল্যাপটপ, চার্জার, ডায়েরি এবং তিনটি দামি মোবাইল সেটসহ কিছু জিহাদি বই উদ্ধার করা হয়।
তাঁর টার্গেট উচ্চ শিক্ষিত এবং বিভিন্ন কাজে দক্ষ তরুনকে মগজধোলাই করে দলে ভিড়িয়ে চালাচ্ছিলেন নানান নাশকতার পরিকল্পনা। সম্প্রতি বাংলাদেশে ৩ মাসে ৩ মুক্তমনা ব্লগার খুনের সাথে তিনি বা তাঁর সঙ্গিরা জড়িত আছেন কিনা খতিয়ে দেখা হচ্ছে তাও।
পুলিশ কর্মকর্তারা জানান, আমিনুল ইসলাম বেগ প্রকৌশলীর আড়ালে একজন দুর্ধর্ষ জঙ্গি নেতা। জঙ্গি সংগঠন জামায়াতুল মোজাহেদিন বাংলাদেশের ( জেএমবি) বর্তমান সমন্বয়ক হিসেবে কাজ করছেন তিনি। কোকাকোলা কোম্পানির চাকরি তার ওপরের লেবাস। প্রকৃতপক্ষে তিনি বাংলাদেশের জঙ্গি জেএমবি ও আন্তর্জাতিক জঙ্গি সংগঠন আইএস’র বাংলাদেশের সমন্বয়কারী। একদল আধুনিক শিক্ষায় শিক্ষিত তরুণদের দিয়ে ‘জিহাদ’ করানোর উদ্দেশ্যে তিনি কাজ করছিলেন। ইতোমধ্যে বেশ কয়েকজনকে ইরাক ও সিরিয়ায় পাঠিয়েছেন। আরও যারা যেতে ইচ্ছুক তাদের পাঠানোর প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন।
গোয়ান্দারা জানান, ২০ জনের একটি স্পেশাল দলও করেছিলেন বেগ। আমিনুল যে ২০ জনের একটি গ্রুপ তৈরি করেছেন তার মধ্যে সাকিব বিন কামাল একজন। তিনি লালমাটিয়ার একটি ইংরেজী মাধ্যম স্কুলের শিক্ষক বলে জানিয়েছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) যুগ্ন কমিশনার মনিরুল ইসলাম।
সোমবার (২৫ মে) দুপুরে গ্রেফতারকৃত আমিনুল ইসলাম বেগ ও তার সহযোগী সাব্বির বিন কামালকে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের কার্যালয়ে হাজির করা হয়। এ সময় এক প্রেস ব্রিফিংয়ে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) যুগ্ন কমিশনার মনিরুল ইসলাম সাংবাদিকদের বিভিন্ন বিষয়ে ব্রিফ করেন। গোয়েন্দা পুলিশের উত্তর বিভাগের ডিসি শেখ নাজমুল আলম, এডিসি শাহাজাহান, মিডিয়ার ডিসি (ভারপ্রাপ্ত) এসএম জাহাঙ্গীর আলম সরকার, অভিযান পরিচালনাকারী গোয়েন্দা বিভাগের সহকারী কমিশনার মাহফুজুল আলম রাসেল প্রেস ব্রিফিংয়ে উপস্থিত ছিলেন।
এ বছর ৩ ব্লগার হত্যায় উন্নত প্রযুক্তির ব্যবহার হতে পারে বলে সন্দেহ করছেন কেউ কেউ। গ্রেফতারকৃত জঙ্গিদের অনেকেই বিভিন্ন ধরনের প্রকৌশল বিদ্যার সাথে যুক্ত থাকায় সে সন্দেহটি ডানা মেলছে বড় করে।

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close