ইতালির রোমে বিজয় দিবস উদযাপন করেছে ইতালি আওয়ামিলীগ

italy awamileageনাজমুল হোসেন,ইতালি থেকেঃ ইতালির রোমে গৌরবময় বিজয়ের ৪৪তম বিজয় দিবস উদযাপন করেছে ইতালী আওয়ামী লীগ। ইতালী আওয়ামী সহ সভাপতি আবু সাঈদ খানের সভাপতিত্বে ও সাধারন সম্পাদক হাসান ইকবালের পরিচালনায় স্থানীয় তরপিনাত্তারা সুন্দরবন রেষ্টুরেন্টের হলরুমে আয়োজিত বিজয়ের অনুষ্ঠানে শুরুতেই পবিত্র কোর্ আন তেলাওয়াত করেন ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক শহিদুল ইসলাম। আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন ইতালী আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি আলি আহাম্মদ ঢালী, হাবীব চৌধুরী, জাহাঙ্গীর ফরাজী, জসিম উদ্দিন, মিজানুর রহমান, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক আতিয়ার রসুল কিটন, শোয়েব দেওয়ান, ফখরুল ইসলাম, আবু তাহের, সাংগঠনিক সম্পাদক মোজাফ্ফর হোসেন বাবুল, সরদার মোহাম্মদ লুতফর রহমান, এমডি জামান মোক্তার, কাজী মনসুর আহামেদ শিপু, দপ্তর সম্পাদক হাবীব মকদম,উপপ্রচার সম্পাদক এলিন আহমেদ মিঠু, সম্পাদক বাবুল মোড়ল, আইন বিয়ক সম্পাদক ফারুক খালাশী, সাংস্কৃতিক সম্পাদক ওয়াহেদ কাঞ্চন, বঙ্গবন্ধু পরিষদের সহ সভাপতি মোজাম্মেল হক পাটোয়ারী, স্বেচ্ছাসেবক লীগ ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক মাসুদ রানা, শেখ রাসেল জাতয়ি শিশু কিশোর পরিষদের সভাপতি হাবিবুর রহমান নাজমুল, আরো উপস্থিত ছিলেন ফারুক ফরাজী, দিপু, দেলোয়ার, মহিলা আওয়ামী লীগ সাধারন সম্পাদক ইয়াসমিন আক্তার রোজী, সাংগঠনকি সম্পাদক নয়না আহমেদ, তুহিনা জামান মলিসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা।

বিজয় দিবস উদযাপন অনুষ্ঠানে নেতৃবৃন্দ বলেন ৩০লাখ শহীদ ও দুই লাখ মা-বোনের আত্ম ত্যাগের বিনিময় অর্জিত স্বাধীনতা আমরা প্রান দিয়ে হলেও রক্ষা করব। প্রবাসে থেকেও আমরা আমাদের প্রিয় মাতৃভুমি বাংলাদেশকে এক মুহুর্তের জন্যেও ভুলে থাকতে পারি না। বক্তার বলেন জাতয়ি বেঈমান জিয়াউর রহমানের কুলাঙ্গার পুত্র তারেক লন্ডনে বসে কিছু দিন পর পর এককেটি উদ্ভট কথা বলে জাতিকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করতেছে। তার সেই অপচেষ্টা কোনদিনই সফল হবে না, বরং তার ইদানিং কালের কথাবার্তা শুনে মহে হয় তিনি প্রায় পাগল হয়ে গিয়েছেন। বক্তারা বলেন সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সম্পর্কে কটুক্তিকারী সে যেই হোকনা কেন তাকে কোন ছাড় দেওয়া হবে না।
অনুষ্ঠানে সর্ব ইউরোপ আওয়ামীলীগের সভাপতি শ্রী অনিল দাশ গুপ্ত টেলিফোনে উপস্থিত সকলকে বিজয়ের শুভেচ্ছা জানান এবং জিয়া পুত্র তারেকের এহেন গর্হিতকর মন্তব্যের তীব্র নিন্দা ও ঘৃনা প্রকাশ করেন।

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close