বিবিয়ানার গ্যাস নবীগঞ্জের ঘরে ঘরে পৌছে দিতে সব ধরনের সহযোগিতা করা হবে

নবীগঞ্জের ইনাতগঞ্জে এডভোকেট আবু জাহির এমপি

pic 2উত্তম কুমার পাল হিমেল,নবীগঞ্জ(হবিগঞ্জ)থেকে ঃ হবিগঞ্জ জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও হবিগঞ্জ-লাখাই আসনের সংসদ সদস্য এডভোকেট আবু জাহির বলেছেন,নবীগঞ্জের বিবিয়ানার গ্যাস নবীগঞ্জের ঘরে ঘরে পৌছে দেয়ার সব ধরনের সহযোগিতা করা হবে। বিবিয়ানার গ্যাস দেশের ৫০ ভাগ চাহিদা পূরণ করলেও স্থানীয়রা ন্যায্য অধিকার থেকে বঞ্চিত। খনিজ সম্পদ মন্ত্রনালয়ের সংসদীয় বোর্ডের সদস্য হিসেবে আগামী সভায় দাবীটি তুলে ধরবেন বলে এলাকাবাসীকে আশ্বস্থ করেন। তিনি আরো বলেন,বিবিয়ানা গ্যাস ফিল্ডের সুবাদে যেভাবে আজ নবীগঞ্জের ইনাতগঞ্জ এলাকা আলোকিত,তেমনি ভাবে প্রয়াত সাবেক সফল অর্থমন্ত্রী কিবরিয়া সাহেবের আমলে এই নবীগঞ্জের মাটিও আলোকিত হয়েছিল। তিনি বলেন,আওয়ামীলীগ ক্ষমতায় গেলে মসজিদ মাদ্রাসার উন্নয়ন হয়। আর বিএনপি ক্ষমতায় গেলে উন্নয়নের টাকা নিয়ে দুর্নীতি করা হয়। তিনি নেতা কর্মীদের ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করার আহবান জানিয়ে বলেন,আজ উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত করেছেন,আগামী এমপি হিসাবেও এ আসন ধরে রাখতে পারবেন বলে আমি বিশ্বাস করি। নবীগঞ্জের উন্নয়নে সব সময় পাশে থাকবেন বলেও তিনি আশ্বস্থ করেন। তিনি গতকাল শুক্রবার বিকেলে নবীগঞ্জ উপজেলার ইনাতগঞ্জ আওয়ামীলীগ ও অঙ্গ সংগঠনের উদ্যোগে উপজেলা চেয়ারম্যান আলমগীর চৌধুরীকে দেয়া সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় উপরোক্ত কথাগুলো বলেন। ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি আব্দুল মালিক এর সভাপতিত্বে সাংগঠনিক সম্পাদ রাকিল হোসেন এর পরিচালনায় উক্ত সভায় সংবর্ধিত অতিথি ছিলেন নবীগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান আলমগীর চৌধুরী। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন,নবীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক সাইফুল জাহান চৌধুরী,যুগ্ম সাধারন সম্পাদক মুজিবুর রহমান কাজল,সাংগঠনিক সম্পাদক রিজভী আহমেদ খালেদ। বক্তব্য রাখেন ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক মুজিবুর রহমান,সাবেক সভাপতি আজিজুর রহমান,সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক শকদিল হোসেন,আবুল কালাম আজাদ,এম এ মুমিন,মিঠু দেব,জগন্নাথপুর উপজেলা যুবলীগ নেতা আব্দুল বারিক,জেলা ছাত্রলীগের সদস্য আক্তারুজ্জামন কমল,উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ন আহবায়ক দীপংকর ভট্রাচার্য্য দেবুল,কাইফু আহমেদ,রুবেল আহমেদ প্রমূখ।
সভায় সংবর্ধিত উপজেলা চেয়ারম্যান আলমগীর চৌধুরী বলেন,আপনাদের সেবক হিসেবে কাজ করতে চাই। আজ আমাকে ফুল দিয়ে যে সম্মান দিলেন,সেটা আমি আপনাদের ফিরিয়ে দিলাম। আপনাদের জন্য উপজেলার সেবার দরজা ২৪ ঘন্টা খোলা থাকবে।

Pin It on Pinterest

Share This

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close